Thursday , 20 June 2019

বাস্তুশাস্ত্র মতে ৮টি দিকে গুরুত্ব ও প্রভাব জেনে নিন

যে কোনও ধরনের নির্মাণ কাজ শুরু করার আগে তার বাস্তু বিচার করে নেওয়া অত্যন্ত জরুরি। কারণ, জমি বা ভূখণ্ড বাছাইয়ের ক্ষেত্রে বাস্তুশাস্ত্রের নির্দেশ মেনে চললে বাস্তুদোষ কাটানো সম্ভব। এই বাস্তুশাস্ত্র মূলত আটটি দিকের উপর ভিত্তি করে নির্মিত। বাস্তুশাস্ত্রে সূর্যকে কেন্দ্র করে, আট দিকের উপর সৌর শক্তির প্রভাব অনুযায়ী গৃহ নির্মাণের বিধান দেওয়া আছে। এই আটটি দিক বিশ্লেষণ করেই ঠাকুরঘর, শোবার ঘর, স্নানের ঘর ইত্যাদি নির্মাণের বিধান দেওয়া হয়েছে। এ বার বাস্তুশাস্ত্র মতে এই আটটি দিকের গুরুত্ব সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক।

বাস্তুশাস্ত্র মতে আটটি দিকের গুরুত্ব:

১) উত্তর দিকে কিছুটা খালি জায়গা ছাড়তে পারলে মাতুল বংশের মঙ্গল হয়।

২) বাস্তুশাস্ত্র মতে, দক্ষিণ দিক হল ধন-সম্পত্তি, সমৃদ্ধি, সৌভাগ্য ও শান্তির দিক।

৩) বাস্তু মতে, পূর্ব দিক বংশের কল্যাণের দিক বলে বিবেচিত হয়। তাই বাস্তুশাস্ত্রের নির্দেশ অনুযায়ী, গৃহ নির্মাণের সময় পূর্ব দিকের কিছু জায়গা খোলা ছাড়তে পারলে গৃহস্বামীর আয়ু বৃদ্ধি হয়।

আরও পড়ুন: বাস্তুশাস্ত্র মতে ক্রিস্টাল বলের কার্যকরীতা

৪) শাস্ত্র মতে, পশ্চিম দিক হল সাফল্য, যশ, ঐশ্বর্য ও খ্যাতির দিক।

৫) ঈশান কোণ বংশ বৃদ্ধিতে স্থায়িত্ব প্রদান করে। এই কোনে কোনও রকমের ত্রুটি বংশ বৃদ্ধির ধারাবাহিকতায় বাধা সৃষ্টি করতে পারে।

৬) নৈঋত কোণ সুবিচারের জন্ম দেয়। এ ছাড়াও, নৈঋত কোণ সুসম্পর্ক গঠনে সহায়ক।

৭) অগ্নি কোণ স্বাস্থ্যোন্নতিতে বিশেষ ভাবে সহায়ক। এই কোণ ত্রুটিপূর্ণ হলে সংসারে অশান্তির সৃষ্টি হয়।

৮) বায়ু কোণ শত্রু বা মিত্র সম্পর্ক তৈরির ক্ষেত্রকে প্রভাবিত করে। বায়ু কোণ ত্রুটিপূর্ণ হলে শত্রুর সংখ্যা বৃদ্ধি পায়।

Check Also

১৫ বছর পরেও ফিরে আসেনি নোবেল! সেদিন গিয়েছিল আরও অনেক নামীদামী রবীন্দ্রসম্পদ!

পনের বছর কেটে গেল এখনও রবীন্দ্রনাথের নোবেল চুরির রহস্য উন্মোচন হল না। আশাহত শান্তিনিকেতন। দিনটা ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *