Friday , 7 August 2020
[cvct-advance id=20554]

দেশের প্রতি দ্বায়িত্ববোধ: মাতৃত্বকালীন ছুটি বাদ দিয়ে সদ্য প্রসূতিজাত IAS অফিসার কাজে মগ্ন

দেশের প্রতি দ্বায়িত্ববোধ: মাতৃত্বকালীন ছুটি বাদ দিয়ে সদ্য প্রসূতিজাত IAS অফিসার কাজে মগ্ন- সমাজে এমন কিছু মানুষ থাকেন যাদের দায়িত্ববোধ , কর্তব্যবোধ দেখে সত্যিই স্যালুট জানাতে হয় । কঠিন পরিস্থিতিতেও যারা তাদের দায়িত্ব থেকে একপা -ও সরে আসেন না । তেমনই একজন মানুষ হলেন আইএএস অফিসার শ্রীজনা গুম্মাল্লা ।বর্তমানে সকল স্তরের মানুষের একটাই আতঙ্ক করোনা ভাইরাস ।

দেশজুড়ে প্রশাসনের করা নির্দেশে জারি রয়েছে লকডাউন । জানা অজানা তার দেশের মানুষের প্রতি দায়িত্ববোধ ,কর্তব্যবোধ আগে, মাতৃত্বকালীন ছুটি নয়! সোশ্যাল মিডিয়া কুর্ণিশ জানাচ্ছে এই সদ্য মা হওয়া এই মহিলা আইএএস অফিসারকে! সমাজে এমন কিছু মানুষ থাকেন যাদের দায়িত্ববোধ , কর্তব্যবোধ দেখে সত্যিই স্যালুট জানাতে হয় ।

কঠিন পরিস্থিতিতেও যারা তাদের দায়িত্ব থেকে একপা -ও সরে আসেন না । তেমনই একজন মানুষ হলেন আইএএস অফিসার শ্রীজনা গুম্মাল্লা ।বর্তমানে সকল স্তরের মানুষের একটাই আতঙ্ক করোনা ভাইরাস । দেশজুড়ে প্রশাসনের করা নির্দেশে জারি রয়েছে লকডাউন বন্ধ স্কুল – কলেজ , দোকান বাজার , অফিস-আদালত সবকিছুই । শুধু জরুরি পরিষেবাগুলি এখন চালু আছে ।

তেমনই দেশের জরুরি পরিষেবার সঙ্গে যুক্ত এই শ্রীজনা গুম্মাল্লা । দেশের এই সংকটময় পরিস্থিতিতে জনগনের সুবিধার্থে কাজ করার জন্য নিজের ৬ মাসের মাতৃত্বকালীন ছুটিও নেবেন না বলে জানিয়েছেন সদ্য মা হওয়া এই মহিলা আইএএস অফিসার।এই লকডাউন পরিস্থিতিতে জরুরি পরিষেবার সঙ্গে যুক্ত সকলেই দেশ সচল রাখতে তৎপর।

আমজনতার যাতে কোনওরকম অসুবিধে না হয় সেদিকে সর্বক্ষণ নজর রয়েছে তাঁদের। কিন্তু শ্রীজনা দেবীর এই সিদ্ধান্ত এক আলাদাই নজির সৃষ্টি করেছে ।চলতি বছরের শুরুর দিকেই সন্তানের জন্ম দিয়েছে শ্রীজনা গুম্মাল্লা। তিনি ২০১৩ সালের আইএএস ব্যাচের একজন অফিসার । এখন তিনি গ্রেটার বিশাখাপত্তনম পুরসভার কমিশনারের পদে আসীন। কিন্তু দেশের এই দুঃসময়ে সন্তানের জন্মের পর মাতৃত্বকালীন ছুটি নেবেন না বলেই জানিয়েছেন শ্রীজনা।

বরং কাজ করবেন অন্ধ্রপ্রদেশের সাধারণ মানুষের জন্য । দুধের শিশুকে সঙ্গে নিয়েই তাই নিয়মিত অফিস আসছেন শ্রীজনা। নবজাতককে তোয়ালে জড়িয়ে কোলে নিয়েই চলছে নিত্যদিনের কাজকর্ম। একদিকে মায়ের দায়িত্ব অন্যদিকে আছে দেশের প্রতি কর্তব্য – দুদিকই সমান ভাবে সামলে যাচ্ছেন তিনি ।টুইটারে তাঁর ছবি শেয়ার করেছেন চিগুরু প্রশান্ত কুমার নামের এক ব্যক্তি। তিনি লিখেছেন, “৬ মাসের মাতৃত্বকালীন ছুটি না নিয়ে দেশের এই জটিল পরিস্থিতিতে কাজে এসেছেন এই আইএএস অফিসার।

সঙ্গে রয়েছে তাঁর এক মাসের সন্তানও। ”এপ্রসঙ্গে শ্রীজনা জানিয়েছেন, এই পরিস্থিতিতে নিজের সন্তানের জন্য যথেষ্ট নিরাপত্তা নিয়েছেন তিনি। হাইজিনের দিকেও সম্পূর্ণ ভাবে খেয়াল রাখছেন। বাচ্চার খাওয়াদাওয়া কিংবা কোনও কিছুতেই সমস্যা না হয় সেদিকেও নজর রয়েছে তাঁরা। আর সেই কারণেই একরত্তিকে নিয়েই অফিসে আসেন তিনি। তবে তিনি দেশের প্রতি , তার কাজের প্রতিও অবহেলা করতে পারেননি তাই এমন সিদ্ধান্ত বেঁচে নিয়েছেন ।

Check Also

PhD পাস ফল বিক্রেতা তরুণীর ঝরঝরে ইংরেজি লজ্জায় ফেলবে আপনাকে

একজন সবজি বিক্রেতা এই ভাবেই ঝড়ের গতিতে ইংরেজি বলতে পারেন এমনটা আমরা ভেবে উঠতে পারিনা। ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *