Saturday , 17 October 2020
[cvct-advance id=20554]

ঘরোয়া উপায়েই মাইগ্রেনের যন্ত্রণা থেকে সহজে রেহাই পান

ওষুধের বদলে ঘরোয়া টোটকা বেছে নিন এবং মাইগ্রেনের ব্যথা উপশম করুন।
মাইগ্রেন দীর্ঘস্থায়ী এবং অত্যন্ত কষ্টদায়ক। মাইগ্রেনের যন্ত্রণা কম থেকে বেশি সব রকমই হতে পারে। উজ্জ্বল আলো, নির্দিষ্ট গন্ধ বা তীব্র আওয়াজের ফলে ব্যথা শুরু হতে পারে। এই অস্বস্তি মাথার এক ধার থেকে শুরু হতে পারে এবং দুই থেকে তিন দিন পর্যন্ত স্থায়ী হতে পারে। মাইগ্রেনের ফলে তীব্র মাথা যন্ত্রণার পাশাপাশি বমি, গা গোলানো, মুখে এবং দেহে অস্বস্তিভাব দেখা দিতে পারে। এটা সাধারণত জেনেটিক, পরিবারের সদস্যদের মধ্যে বংশপরম্পরায় প্রবাহিত হতে দেখা যায়। তবে সব ধরণের মাথা যন্ত্রণাই মাইগ্রেন নয়।

মাইগ্রেনের প্রকৃত কারণ এখনও অজানা। তবে নিয়মিত চাপ, অ্যানক্সাইটি এবং দুশ্চিন্তার থেকে মাইগ্রেন হয়। যেকোনো বয়সের মানুষেরই মাইগ্রেন অ্যাটাক হতে পারে। তবে মহিলাদের মধ্যেই এই প্রবণতা বেশি দেখা যায়। নন-স্টেরয়েডিয়াল অ্যান্টিইনফ্ল্যামেটরি ওষুধ যেমন ইবুপ্রোফেন, অ্যাসপিরিন, ন্যাপ্রোক্সিন জাতীয় ওষুধের সাহায্যে সাধারণত চিকিৎসা করা হয়। শব্দহীন অন্ধকার ঘরে থেকে তাৎক্ষণিক স্বস্তি পাওয়া যায়। ওষুধের সাহায্যে রেহাই পাওয়া গেলেও সব সময় ওষুধ সেবনের অভ্যাস না করাই উচিত।

ঘরোয়া উপায়ে মাইগ্রেন থেকে মুক্তির কয়েকটা পদ্ধতি উল্লেখ করা হলঃ

1. আঙুরের রস

হ্যাঁ আঙুরের রস মাইগ্রেন থেকে মুক্তি দিতে সাহায্য করে। সামান্য পরিমাণ জল সহযোগে তাজা আঙুর ব্লেন্ড করে পান করুন এবং মাইগ্রেন থেকে মুক্তি পান। দিনে দু’বার পান করলে ফল পাবেন। আঙুরে প্রচুর ফাইবার, ভিটামিন এ এবং সি থাকে এবং কার্বোহাইড্রেট থাকে। এছাড়াও আঙুর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সাইট্রাস সমৃদ্ধ ফল যা মাইগ্রেন উপশমকারী ঘরোয়া টোটকা হিসাবে পরিচিত।

2. আদা

আদা আমাদের চাপ এবং ব্যথা দূর করতে সাহায্য করে। এটি মাইগ্রেন দূর করতেও অত্যন্ত কার্যকরী ভূমিকা পালন করে। লেবু ও আদার রস কিংবা আদা চা বা আদা বাটা মাইগ্রেন দূর করতে অত্যন্ত সাহায্য করে।

আদা চা মাইগ্রেনের ব্যথা উপশম করে

3. দারুচিনি

দারুচিনি আমাদের খাবারের স্বাদ বৃদ্ধির পাশাপাশি মাইগ্রেনও উপশম করে। জলের সঙ্গে দারুচিনির গুঁড়ো মিশিয়ে কপালে মেখে আধঘন্টা পর গরম জলে ধুয়ে নিলে মাইগ্রেনের ব্যথা কমে যায়।

দারুচিনির পেস্ট মাইগ্রেনের ব্যথা উপশম করে

4. সামান্য পরিমাণ ক্যাফাইন

মাইগ্রেনের ব্যথা শুরু হতে চলেছে বুঝতে পারলে সামান্য পরিমাণ ক্যাফাইন গ্রহণ করলে অস্বস্তির থেকে রেহাই পাওয়া যায়। কিন্তু যেসব মানুষের ক্যাফাইনের আসক্তি আছে তাঁদের ক্ষেত্রে এই টোটকা কাজ করে না। সেক্ষেত্রে ব্যথা না থাকলেও আপনার ব্যথা শুরু হয়ে যেতে পারে।

মাইগ্রেন দূর করতে এক কাপ কফি পান করুন

5. অত্যাধিক আলো এড়িয়ে চলুন

অত্যাধিক আলো মাইগ্রেনের কারণ হতে পারে। তাই লাইট বন্ধ করে বা কম আলোতে চশমা পরে কাজ করতে পারেন।অত্যাধিক আলো এড়িয়ে চলুন।

6. ম্যাসাজ

মাইগ্রেনের ব্যথা দূর করার সবচেয়ে সহজ উপায় হল কাউকে ম্যাসাজ করে দিতে বলা। মাথায় এবং ঘাড়ে ম্যাসাজ করলে রক্ত সঞ্চালন বেড়ে যায় ফলে আপনি আরাম পাবেন এবং মাইগ্রেনের ব্যথা দূর হবে।

এই কয়েকটা সহজ উপায়েই আপনি মাইগ্রেনের ব্যথা দূর করতে পারবেন কোনও ওষুধপত্র ছাড়াই।

Check Also

Google এর চাকরি ছেড়ে শুধু সিঙ্গারা বিক্রি করে কোটিপতি!

Google এর চাকরি ছেড়ে শুধু সিঙ্গারা বিক্রি করে কোটিপতি! – বিশ্বের সেরা আইটি প্রতিষ্ঠান ‘গুগল’-এ ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!