Saturday , 19 September 2020
[cvct-advance id=20554]

গণেশ চতুর্থীতে এই মন্ত্র উচ্চারণ আপনার ভাগ্যের চাকা খুলে যাবে

আমাদের তেত্রিশ কোটি দেবতার মধ্যে সিদ্ধি অর্থাৎ বুদ্ধি, ধন ও সমৃদ্ধির দেবতা হল গনেশ। এই গনেশ হল শিব ও পার্বতীর সন্তান। প্রথমে ক্রোধের বশে মাথা কেটে দিলেও পরে হাতির মাথা বসিয়ে পুনঃ জীবিত করেন স্বয়ং মহাদেব এই গনেশকে। আর তারপর তাকে বরদান করেন যে প্রত্যেক পুজোর আগে গনেশের পুজো করতে হবে। এছাড়া প্রতি বছর একটা নির্দিষ্ট দিনে ধুমধাম করে পালন করা হয় গনেশ পুজো। এই দিনকে বলা হয় গনেশ চতুর্থী।

আমাদের ভারতের প্রতিটি প্রান্তে এই গনেশ পুজো সবচেয়ে বেশি ধুমধাম করে হয়। বাঙালির থেকে বেশি অবাঙালি অর্থাৎ পশ্চিমবঙ্গের বাইরের রাজ্য গুলিতে এই অনুষ্ঠান বেশি জাকজমক করে হলেও বেশ কয়েকবছর ধরে বাঙালিরাও এই অনুষ্ঠানে মেতে ওঠে প্রতি বছর।

প্রতি বছর এই গনেশ চতুর্থী আগষ্ট থেকে সেপ্টেম্বরের মধ্যে পড়ে৷ এই বছর ১৩ই সেপ্টেম্বর পড়েছে গনেশ চতুর্থী। ইতিমধ্যে অনেক যায়গায় পুজোর উন্মাদনা শুরু হয়ে গেছে। তবে এই বছর অন্যান্য বছরেএ তুলনায় বেশি আকর্ষণীয় ও সৌভাগ্যের। কারন এই বছর তিথি নক্ষত্রের অবস্থান সবচেয়ে ভালো।

জ্যোতিষশাস্ত্র মতে এই বছর যদি কেউ ভক্তি ভরে গনেশ পুজো করে তবে তার মনবাঞ্ছনা পূর্ন হবে। তবে তার জন্য জপ করতে হবে কয়েকটি মন্ত্র। আসুন তবে জেনে নেই কোন কোন মন্ত্র এই গনেশ চতুর্থীর দিন পাঠ করলে আপনার সাফল্য ও প্রতিপত্তি বাড়বে।

১) ধ্যান মন্ত্রঃ

“ওঁ ধ্যায়েন্নিত্যং গনপতিং বিদ্যুদ্বর্ণং গজাননং ।

শ্বেতাম্বরং সিতাব্জস্থং স্বর্ণমুকুট শোভিতম্ ।।

শ্বেতমূষিক পৃষ্ঠন্যস্তবামচরনং সিদ্ধিদং ।

বামজান্বারোপিতদক্ষিনপদং চতুর্ভুজম্ ।।”

এই মন্ত্রটি আপনি যদি গনেশ চতুর্থীর দিন ধ্যানে বসে পাঠ করেন তো আপনার যাবতীয় সমস্যার থেকে মুক্তির উপায় খুঁজে পাবেন। নতুন রাস্তা খুলে যাবে জীবনের।

২) বিদ্যায় সফলতার মন্ত্রঃ “ওঁ গং গনপতেয় নমঃ”

যেসব জাতক জাতিকারা পড়াশুনো করছে তারা যদি এইদিন ভক্তিভরে ২৮ বার উচ্চরন করে তবে তাদের পড়াশুনার উন্নতি হবে। শুধু এই দিন নয় সারাবছর যদি কেউ প্রতিদিন ২৮ বার করে পাঠ করে তো তার পড়াশুনা দিন দিন অগ্রগতি হবে।

৩) ঋনমুক্তির জন্য – “ওঁ গনেশ ঋনং ছিন্দিং বরেন্যং হুং ফট্ নমঃ ।”

আপনি যদি ঋন অর্থাৎ দেনায় জর্জরিত থাকেন তো এই গনেশ চতুর্থীর দিন এই মন্ত্রটি অবশ্যই ১০৮ বার জপ করুন। আপনার ঋন মুক্তি ঘটে স্বাভাবিক জীবন ফিরে পাবেন। আর্থিক প্রতিপত্তি ও বাড়বে। আয়ের নতুন দীশা খুঁজে পাবেন। জীবনে সুখ শান্তি বজায় থাকবে।

তাই এই সুযোগ হাতছাড়া করবেন না। এই গনেশ পুজোয় পাঠ করুন এই মন্ত্রগুলি, আর গনপতির আশীর্বাদে নিজের সৌভাগ্যকে ফিরিয়ে আনুন।

Check Also

আদ্যা মায়ের কৃপায় বিপদ কাটে বাড়ে সমৃদ্ধি, দুর্বলতা কাটিয়ে জীবনে আসে শক্তি

আদ্যা মা এক বিপুল শক্তির উৎস ৷ আদ্যাস্তোত্র পাঠ করলে বিপুল শক্তি পাওয়া যায় ৷ ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!